চাঁদপুরে উচ্চস্বরে হর্ণ বাজানোর দায়ে ৪ গাড়ি চালককে অর্থদণ্ড

নিজস্ব প্রতিবেদক :
উচ্চস্বরে হর্ণ বাজানোর দায়ে চাঁদপুরে চার গাড়ি চালককে অর্থদন্ড করেছে ভ্রাম্যমাণ আদালত। ১১ মার্চ বৃহস্পতিবার দুপুরে সদর উপজেলার চাঁদখাঁর দোকান এলাকায় ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেন জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. ছামিউল ইসলাম।
নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. ছামিউল ইসলাম বলেন, শব্দদূষণ (নিয়ন্ত্রণ) বিধিমালা না মানায় ৪ জন গাড়ি চালককে ৫ হাজার ৫শ’ টাকা জরিমানা করা হয়। আমরা মোটরযান চালিত বাস-ট্রাকের যে হর্ণগুলো আছে সেগুলো পরীক্ষা করেছি। হর্ণগুলোর সাউন্ড ৮৫ ডেসিবেল থাকার কথা। আমরা পরিবেশ অধিদপ্তরের ডিভাইসের মাধ্যমে পরীক্ষা করার পর তাদের হর্ণগুলো ১০২ থেকে ১০৩ ডেসিবেল শব্দ ধরা পড়ে। যা মানুষের কানের জন্য খুবই ক্ষতিকর।
তিনি জানান, অহেতুক হর্ণ না বাজানো বা উচ্চ শব্দ তৈরি থেকে বিরত থাকার জন্য সংশ্লিষ্টদের মাঝে প্রচারণা চালানো হয়। এ অভিযান চলমান থাকবে।
এ সময় উপস্থিত ছিলেন পরিবেশ অধিদপ্তর চাঁদপুর জেলা কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক নাজিম হোসেন শেখ, চাঁদপুর জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট দেবযানী কর, রিক্তা খাতুন ও পরিবেশ অধিদপ্তর চাঁদপুর জেলা কার্যালয়ের পরিদর্শক উত্তম কুমার ও জেলা পুলিশের সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।
পরিবেশ অধিদপ্তর জানায়, শব্দদূষণের ফলে শ্রবণ শক্তি হ্রাস ও স্থায়ীভাবে নষ্ট হয়, হৃদরোগসহ মস্তিষ্ক বিকৃতি ঘটে, উচ্চ রক্তচাপ ও ফুসফুসজনিত জটিলতা দেখা দেয়, ক্ষুদামন্দা ও মানসিক চাপসহ বিভিন্ন স্বাস্থ্য সমস্যা সৃষ্টি হয়, অনিদ্রা ও স্মরণ শক্তি হ্রাস পায়। শব্দদূষণ (নিয়ন্ত্রণ) বিধিমালা, ২০০৬ অনুসারে নির্ধারিত শব্দ মানের অধিক শব্দ সৃষ্টি, হাসপাতাল, সরকারি অফিস, আবাসিক এলাকায় অহেতুক হর্ণ বাজানো এবং উচ্চস্বরে হর্ণ বাজানো নিষেধ এবং দন্ডনীয় অপরাধ।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.