ঈদকে সামনে রেখে চাঁদপুরে নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার

পশুর হাটে থাকবে জাল টাকা শনাক্তকরণ মেশিন : জাহেদ পারভেজ চৌধুরী

আশিক বিন রহিম :
আসন্ন কোরবানির ঈদকে সামনে রেখে সকল প্রকার অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে চাঁদপুর জেলা পুলিশের ব্যাপক নিরাপত্তা জোরদার করা হয়েছে। ঈদুল আজহায় পশুর হাট, শহরের গুরুত্বপূর্ণ পয়েন্ট, মার্কেট-বিপণিবিতান, ঈদের জামায়াতের স্থানসহ গুরুত্বপূর্ণ স্থানগুলোতে নিরাপত্তা বলয় গড়েতোলা হয়েছে। ঈদের জামায়াত গুলোতে যাতে করে কোন প্রকার অপ্রীতিকর ঘটনা না ঘটে, এজন্য পুলিশের বিশেষ টিম গঠন করা হয়েছে।


জনগণকে নিরাপত্তা বিষয়টি জানান দিতে ২৪ জুলাই শুক্রবার বিকেলে চাঁদপুর শহরে ব্যাপক মহড়া দেয় জেলা পুলিশ। এসময় বিভিন্ন পয়েন্টে জনসচেতনতায় পথসভাও করা হয়। পুলিশ বিভাগের একাধিক মোটরযান এবং ট্রাফিক সার্জেন্টের মোটরসাইকেল গুলো এই মহড়ায় অংশগ্রহণ করে। চাঁদপুর পুলিশ লাইন থেকে শুরু হয় পুলিশের এই বিশেষ মহড়া।

এরপর প্রথমে শহরের বাসস্টেশন এসে মহড়াটি থেকে উপস্থিত জনসাধারণের উদ্দেশ্যে বক্তব্য রাখেন, চাঁদপুরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) মোঃ জাহেদ পারভেজ চৌধুরী। পরে বিশেষ এই মহড়াটি শহরের শপথচত্তর হয়ে, পালবাজার মোড়, পুরানবাজার, নতুনবাজারসহ শহরের গুরুত্বপূর্ণ সড়ক প্রদক্ষিণ করেন।
এ সময়ের চাঁদপুরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (হেডকোয়ার্টার) আসাদুজ্জামান, চাঁদপুর সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা নাসির উদ্দিনসহ পুলিশের অন্যান্য কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।
অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) মোঃ জাহেদ পারভেজ চৌধুরী বলেন, আমরা চাঁদপুর জেলা পুলিশ আপনাদের নিরাপত্তার স্বার্থে নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করেছি। আপনারা নিজেরা নিজেদের খেয়াল রাখবেন এবং অন্যদের প্রতিও খেয়াল রাখবেন। আইন নশৃঙ্খলা রক্ষায় যে কোন বিষয়ে সন্দেহ হলে সাথে সাথে পুলিশকে জানাবেন। পুলিশকে জানানোর সবচেয়ে সহজ মাধ্যম হলো ৯৯৯ এ কল করা। আপনারা ট্রিপল নাইনে কল করে পুলিশকে যেকোন সমস্যার বিষয়ে জানাবেন।
তিনি বলেন, পশুর হাটে বিভিন্ন স্থান থেকে ব্যবসায়ী ও ক্রেতারা আসবে, লোকসমাগম হবে, গরু বেঁচাকেনা হবে। এছাড়াও ঈদের জামায়াতে লোকসমাগম হবে। এসব স্থানে পুলিশ সার্বক্ষণিক আপনাদের নিরাপত্তায় থাকবে। পশুর হাটে যাতে জাল টাকা লেনদেন হতে না পারে এজন্য আমাদের জাল টাকা শনাক্তকরণ মেশিন থাকবে। জনগণের নিরাপত্তার স্বার্থে চাঁদপুর জেলা পুলিশ সার্বক্ষণিক নিয়োজিত রয়েছে।
করোনার এই পরিস্থিতিতে সকলকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলা আহ্বান জানিয়ে এএসপি সার্কেল বলেন, করোন সংক্রমণ রোধে সবাই স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলবেন। মাস্ক পরে বাড়ি থেকে বের হবেন। যতটা সম্ভব জনসমাগম এড়িয়ে চলবেন।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *