চাঁদপুরে ৫৩ হাজার দরিদ্র পরিবারের মাঝে ১০ টাকা কেজি মূল্যে চাল বিতরণ শুরু

আশিক বিন রহিম :
‘শেখ হাসিনার বাংলাদেশ, ক্ষুধা হবে নিরুদ্দেশ’এ শ্লোগানে সারা দেশের ন্যায় চাঁদপুরেও হতদরিদ্রদের মাঝে ১০ টাকা কেজি দরে চাল বিতরণ কার্যক্রম শুরু হয়েছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রতিশ্রুতি অনুযায়ী খাদ্য অধিদপ্তর কর্তৃক পরিচালিত ইউনিয়ন পর্যায়ে খাদ্যবান্ধব কর্মসূচির অংশ হিসেবে এই চাল বিতরণ করা হচ্ছে।
২১ সেপ্টেম্বর সোমবার থেকে কার্ডধারী প্রতিটি পরিবারকে ১০টাকা কেজি মূল্যে ৩০ কেজি করে চাল দেয়া হয়। এই কর্মসূচিতে সেপ্টেম্বর, অক্টোবর ও নভেম্বর এ তিন মাস তারা ৩০ কেজি করে চাল পাবে।
চাঁদপুর জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রকের কার্যালয় সূত্রে জানা যায়, জেলায় ১২৩ জন ডিলারের মাধ্যমে ৫৩ হাজার ১৫৬ হতদরিদ্র পরিবারের মাঝে ৩০ কেজি করে সর্বমোট ১৫৯৪. ৬৮০ মেট্রিক টন চাল বিতরণ করা হবে। এর মধ্যে চাঁদপুর সদর উপজেলায় ১৪টি ইউনিয়নে ২৩জন ডিলারের মাধ্যমে কার্ডধারী ৮ হাজার ৭৩৬টি হতদরিদ্র পরিবারের মাঝে চাল বিতরণ শুরু হয়।
সোমবার সকালে চাঁদপুর সদর উপজেলার ১২নং চান্দ্রা, ৯নং বালিয়া, মৈশাদী, বিষ্ণুপুর ইউনিয়নসহ বিভিন্ন ইউনিয়নে একাধিক ডিলারের মাধ্যমে এই চাল বিতরণ করা হয়। তবে কোথাও কোথাও ১০ টাকা করে মোট ৩শ’ টাকায় ৩০ কেজি চাল বিক্রির কথা থাকলেও অতিরিক্ত আরো ১০/২০ টাকা নিয়েও পরিমাণে চাল কম দেয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। ৩০ কেজি পরিমাণের প্রতিটি বস্তায় বোঙা দিয়ে ফুটো করে চাল সরিয়ে ফেলা হচ্ছে বলেও জানায় কেউ কেউ। এ বিষয়টি অস্বীকার করে ডিলারদের বক্তব্য হলো, চাল বিক্রির ক্ষেত্রে পরিবহন এবং শ্রমিকসহ নানা খাতে খরচ রয়েছে। তাছাড়া ৩০ কেজি পরিমাণে বস্তা হলেও গোডাউন থেকে চাল ওজনে কম দেয়া হচ্ছে। কিন্তু আমরা গ্রাহকদের বস্তাসহ চাল দিয়ে দিচ্ছি।
৯নং বালিয়া ইউনিয়নের ফরাক্কাবাদ বাজারের ডিলার মোঃ কাদির গাজীর মাধ্যমে চাল বিতরণ উদ্বোধন করেন ইউপি চেয়ারম্যান মোঃ তাজুল ইসলাম মিজি। সেখানে সকাল থেকে বিকেল পর্যন্ত ৪৪৯টি পরিবারের মাঝে ৩০ কেজি করে চাল বিক্রি করা হয়।
১২নং চান্দ্রা ইউনিয়নে ডিলার ইব্রাহিম ইবু ও স্বপন পাটওয়ারীর মাধ্যমে চাল বিক্রির কার্যক্রম উদ্বোধন করেন ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান খান জাহান আলী কালু পাটওয়ারী।
এসময় উপস্থিত ছিলেন, খাদ্য পরিদর্শক তপন দাস, পরিমল সরকার, ইউনিয়ন কমিউনিটি পুলিশিং এর সাধারণ সম্পাদক মোঃ জব্বার পাটোয়ারী, ৯নং ওয়ার্ড ইউপি সদস্য মোঃ সিদ্দিকুর রহমান বেপারী, ১নং ওয়ার্ড ইউপি সদস্য মোঃ আব্বাস পাটোয়ারীসহ অন্যানরা। ইউনিয়নে দুজন ডিলারের মাধ্যমে পৃথকভা ৩৯০ জন ও ৩৯৩জন হতদরিদ্রদের মাঝে ৩০ কেজি করে চাউল দেয়া হয়।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *