পুরাণবাজারে রাস্তার পাশের গড়ে ওঠা বৌ-বাজারে গাড়ি চাপায় শিশু নিহত

আশিক বিন রহিম :
চাঁদপুরের প্রধান বানিজ্যিক এলাকা পুরানবাজারে যান চলাচলের রাস্তার উপর গড়ে ওঠা অবৈধ বৌ-বাজারে গাড়ি চাপায় নিরব (৮) নামে ৬ বছরের এক শিশু নিহত হয়েছে। ১৫ নভেম্বর রোববার সকাল ১১টায় পুরাণবাজার নতুন রাস্তায় এই ঘটনা ঘটে। এই ঘটনায় এলাকার কযেক হাজার বিক্ষুব্ধ জনতা একত্রিত হয়ে অগ্রনী ব্যাংকের পাজারো গাড়িটি ভাংচুর করে এবং গাড়ির চালক মুনির (৩৫) মারধর করেছে। তবে গাড়িতে থাকা তিন বস্তা টাকা অক্ষত অবস্থায় ব্যাংক কর্তৃপক্ষ রক্ষা করতে সক্ষম হয়।

নিহত নিরব পুরানবাজার ১নং ওয়ার্ডে মোম ফ্যাক্টরি এলাকার দিনমজুর মিশু উদ্দিনের পুত্র।
খবর পেয়ে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার কাজী আব্দুর রহিম, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার হেডকোয়াটার আসাদুজ্জামান, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সদর সার্কেল স্নিগ্ধা সরকার, চাঁদপুর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা নাসিম উদ্দিন সহ আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর বিপুল সদস্য ঘটনাস্থলে এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

প্রত্যক্ষদর্শী জানায়, ঘটনার সময় নিরব দোকান থেকে সদাই কিনতে নতুন রাস্তা এলাকায় আসে। এসময় অগ্রনী ব্যাংকের ঢাকা মেট্রো-ঘ ১৩-৪৬৭৮ পাজারো গাড়ি টাকার বস্তা নিয়ে চেম্বার অব কমার্সের নিচ তলায় অগ্রনী ব্যাংক পুরানবাজার শাখায় আসার পথে নতুন রাস্তা এলাকার আসলে নিরব (৮) কে চাপা দেয়। ঘটনাস্থলেই শিশু নিরবে মাথার মগজ বেরিয়ে যায়। মুমূর্ষ অবস্থায় শিশু নিরবকে চাঁদপুর সদর হাসপাতালে নেওয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

এলাকাবাসী আরও জানায়, এখানে রাস্তার উপরে দীর্ঘ কয়েক বছর যাবৎ একটি অবৈধ বৌ-বাজার গড়ে উঠেছে। প্রতিদিন এই বাজারে হাজার হাজার নারী-পুরুষ ও শিশুর সমাগম ঘটে। এই বিপুল সংখ্যক মানুষদের পাশ কাটিয়েই পুরান বাজারের ব্যবসায়ীদের ডিস্ট্রক ট্রাক-লরি সহ বড় বড় যানবাহনগুলো মালামাল নিয়ে দেশের বিভিন্ন প্রান্তে যায়। স্থানীয় কিছু অসাধু ব্যক্তির সহযোগিতায় পুরানবাজারের ঐতিহ্য মূল বাজারটি ধ্বংস করে দিয়ে এখানে একটি অবৈধ বাজার গড়ে তোলার কারণেই আজকের এই দুর্ঘটনা ঘটনাটি ঘটেছে।

ঘটনার পরপরই বিক্ষুব্ধ এলাকাবাসী অগ্রণী ব্যাংকের গাড়িটি ভাঙচুর করে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে চাঁদপুর মডেল থানা পুলিশকে ও পুরান বাজার পুলিশ ফাড়ি ঘটনাস্থলে অবস্থান করছে।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার হেডকোয়াটার আসাদুজ্জামান বলেন, যেহেতু এটি কোন হাইওয়ে সড়ক নয়, তাই এখানে চালক কোন অবস্থাতেই অতিরিক্ত গতিতে গাড়ি চালাতে পারেনা। আমরা বিষয়টি তদন্ত করে দেখছি। গাড়ির গতি কত ছিল এবং চালক নেশাগ্রস্ত ছিল কিনা সেটাও আমরা তদন্ত করে দেখব।

অপরাধীকে অবশ্যই আইনের মাধ্যমে সর্বোচ্চ শাস্তির বিষয়টি আমরা নিশ্চিত করার চেষ্টা করব। তবে এই ঘটনাকে পুঁজি করে কোন একটি পক্ষ যাতে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করতে না পারে সেদিকে আমাদের সবাইকে সতর্ক থাকতে হবে।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *