মতলব উত্তরে কৃষকের ধান কেটে দিলো মইনীয়া যুব ফোরামের কর্মীরা

কামরুজ্জামান হারুন :
কৃষক আবদুল হামিদ। বাড়ি মতলব উত্তর উপজেলার তালতলী গ্রামে। ৩০ শতক জমিতে ধান চাষ করেছেন। ফলন ভালো হয়েছে। তবে করোনা সংক্রমনের কারনে কৃষি শ্রমিক পাচ্ছিলেন না। পাশাপাশি আর্থিক সংগতিও নেই ধান কেটে ঘরে তোলার।
এ খবরটি পেলেন যুব মইনিয়া ফোরামের কেন্দ্রীয় নেতা ইসতিয়াক জামান নাফিজ। কৃষক আবদুল হামিদ কে আশ্বস্থ করলেন। পরে বুধবার কৃষক আবদুল হামিদের ৩০ শতক জমির ধান স্বেচ্ছায় ও বিনা পারিশ্রমিকে কেটে মাড়াই করে দিলেন যুব মইনিয়া ফোরামের সদস্যরা।
সরেজমিনে বুধবার সকালে মতলব উত্তর উপজেলার তালতলী এলাকায় গিয়ে দেখা যায়, কৃষক আবদুল হামিদের জমিতে মইনিয়া যুব ফোরামের অন্তত ১০ জন সদস্য ধান কাটছে। তারা কালবৈশাখী ঝড়, বৃষ্টি ও বিদ্যুৎ চমকানো উপেক্ষা করে অনবরত ধান কাটছে।
কেউ ধান মাথায় করে নিয়ে আসছেন। আবার অন্যরা ধান মাড়াই করছেন।
কৃষক আবদুল হামিদ জানান, হাতে টাকা নেই। আবার কৃষি শ্রমিকও পাচ্ছিলাম না। এদিকে মাঠে ধান পেকে আছে কি করবো বুঝতে পারছিলাম না। আমার এই অবস্থার কথা জানতে পেরে যুবফোরামের সদস্যরা আমার জমির ধান কেটে মাড়াই করে দিয়েছে। যুব ফোরামের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করে আবদুল হামিদ বলেন, অনেক উপকার করেছেন মইনিয়া যুব ফোরামের সদস্যরা। আল্লাহ তাদের ভালো করবেন।
মইনিয়া যুব ফোরামের কেন্দ্রীয় কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক ও দৈনিক সময়ের আলো পত্রিকার স্টাফ রিপোর্টার ঢালী কামরুজ্জামান হারুন জানান, মইনিয়া যুব ফোরামের প্রতিষ্ঠিাতা
মাইজভান্ডার দরবার শরীফের সাজ্জাদানশীন পার্লামেন্ট অফ ওয়ার্ল্ড সুফীজ প্রেসিডেন্ট, বাংলাদেশ সুপ্রিম পার্টির প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান, আঞ্জুমানে রহমানিয়া মইনীয়া মাইজভাণ্ডারীয়ার কেন্দ্রীয় সভাপতি, আওলাদে রাসুল (দ) শাহ্সূফী সৈয়দ সাইফুদ্দিন আহমেদ মাইজভান্ডারী নির্দেশ দিয়েছেন, করোনার মত বৈশ্বিক সংকট ও বিপর্যয়ে মানবতার পাশে থাকার। তারই ধারাবাহিকতায় আমরা অসহায় কৃষক আবদুল হামিদের জমির ধান কেটে দিয়েছি। এছাড়াও ফোরামের সদস্যরা ধান মড়াই করে দিয়েছেন। করোনার এই সময়ে আমাদের মইনিয়া ফোরামের এমন কার্যক্রম অব্যাহত থাকবে।
উপস্থিত ছিলেন মইনিয়া যুব ফোরামের কেন্দ্রীয় নেতা ইসতিয়াক জামান নাফিজ, ইফতেখার জামান নাহিদ, কামরুজ্জামান রাজীব, ফয়েজ বাবু,হ্নদয় প্রধান, অপু হোসেন, মহিন দেওয়ান, জিসান আহমেদ, হ্নদয় সরকার প্রমুখ।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.