এবার রিলাক্স বাস স্টাফদের হামলার শিকার পদ্মার চালক, সড়ক অবরোধ

নিজস্ব প্রতিবেদক :
পদ্মা বাস চালকসহ চেকারদের মারধরের ঘটনায় তুলকালাম কাণ্ড ঘটেছে। গতকাল ১৫ ফেব্রুয়ারি মঙ্গলবার বিকেলে চাঁদপুরের হাজীগঞ্জ উপজেলার বাকিলা এলাকায় রিলাক্স বাসের স্টাফসহ বহিরাগত দলবল নিয়ে পদ্মা বাসের চালক ফরহাদকে মারধর করে আহত করে। এরপর বিকেল সাড়ে ৩ টা থেকে প্রায় ২ ঘন্টা চাঁদপুর থেকে সকল রুটের বাস চলাচল বন্ধ রেখে বাস টার্মিনাল প্রবেশ মুখ অবরোধ করে রাখেন চালকরা- শ্রমিকরা। পরে পুলিশের হস্তক্ষেপে পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয় বলে জানা গেছে।
ধর্মঘটের ডাক দেওয়া চালকরা জানায়, বোগদাদ ও রিলাক্স বাস সময় প্রবেশ মুখে যত্রতত্র ভাবে যাত্রী উঠানামা সহ চাঁদপুর-কুমিল্লা আঞ্চলিক মহাসড়কে যেখানে – সেখানে যাত্রী উঠা নামা করায়। শুধু উঠানামা নয় বোগদাদ ও রিলাক্স সড়কে কার আগে কে যাবে প্রতিযোগিতা করে। এছাড়া অন্য ঢাকা, চট্টগ্রাম, সিলেট, লক্ষীপুর সহ বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষা সফর, বনভোজন, বিয়ের অনুষ্ঠানে গাড়ী বহর কে সাইড নিয়ে বাক – বিতন্ডা সহ দূর্ঘটনা ঘটেছে। এতে সিএনজি, অটোরিকশা ছোট ছোট যানবাহনে দূর্ঘটনায় কবলিত হয়ে অনেক মানুষের প্রাণহানি হয়েছে। সময় মতো গন্তব্যে পৌঁছাতে সময় লেগে যায়।
এ সময় শ্রমিকরা প্রতিবাদে আরে জানায়, এর আগে আমরা জেলা প্রশাসক, পুলিশ প্রশাসন, পৌর প্রশাসন সহ সকলের মাধ্যমে জানানো হয়েছে।
এখনো দাবি করছি। কুমিল্লা রুটের বোগদাদ- রিলাক্স বাস প্রবেশ মুখে রেখে যাত্রী উঠানামা করে যাবে না, সড়কে তাদের দৌরাত্ম্য বন্ধ করতে হবে। এছাড়া ঘটনার সাথে জড়িতদের আইনের আওতায় না আনা হলে সড়ক ধর্মঘট চলবে।
ঘটনাস্থলে গিয়ে জানাযায়, মঙ্গলবার দুপুরে কুমিল্লা বিশ্বরোড থেকে রিলাক্স-পদ্মা বাসের মধ্যে সড়কে সাইড নিয়ে সামন-পিছনে বা আগে আসা নিয়ে চলাচল প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি হয়। এক পর্যায়ে বাকিলায় বাসস্ট্যান্ড এসে উভয়ের শ্রমিকদের মধ্যে বাক-বিতন্ডা জড়িয়ে যায় শেষ পর্যায়ে চাঁদপুর বাস টার্মিনালে পদ্মা চালক ফরহাদকে রিলাক্সের শ্রমিকসহ বহিরাগতরা মারধর করে। অবরোধ চলাকালীন সময়ে চাঁদপুর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত ইনচার্জ আবদুর রশিদ সঙ্গীয় ফোর্স, চাঁদপুর পৌরসভার কাউন্সিলর অ্যাডভোকেট মোঃ কবির চৌধুরী, ও শ্রমিক নেতারা উপস্থিত শ্রমিকদের সাথে কথা বলে একটি সুরাহা করেন।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.