চাঁদপুরে করোনা ও উপসর্গে ১২ মৃত্যু, আক্রান্ত ৪৪৯

নিজস্ব প্রতিবেদক :
চাঁদপুর ২৫০ শয্যার সরকারি জেনারেল হাসপাতালের আইসোলেশন ইউনিটে চিকিৎসাধীন অবস্থায় আরও ১২ জনের মৃত্যু হয়েছে। এর মধ্যে করোনায় ৩ জন ও উপসর্গে ৯ জন মারা যান। গতকাল ৫ আগস্ট বৃহস্পতিবার হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ও করোনা বিষয়ক ফোকালপারসন ডা. মো. সুজাউদ্দৌলা রুবেল এ তথ্য নিশ্চিত করেন।
গত ২৪ ঘন্টায় করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন মতলব দক্ষিণ উপজেলার খিদিপুর এলাকার মোঃ বাচ্চু মিয়া (৭৫), কচুয়া উপজেলার রাফিজা (৪০) ও লক্ষ্মীপুরের রামগঞ্জ উপজেলার রাঘরপুর এলাকার রাহিমা (৭৫)।
এছাড়া উপসর্গে মৃতরা হলেন- মতলব উত্তর উপজেলার রাঢ়িকান্দি এলাকার সেলিনা বেগম (৫৫), ফরিদগঞ্জ উপজেলার উমরখালী এলাকার জাহানারা বেগম (৬০), একই উপজেলার ধানুয়ারপাড় এলাকার যোগমায়া (৭০), চাঁদপুর সদর উপজেলার তরপুরচন্ডি এলাকার রওশন আরা (৫০), মতলব উত্তরের নলুয়া এলাকার তাছমিয়া (৪৫), মতলব দক্ষিণের কলাদী এলাকার মাজেদা বেগম (৫০), চাঁদপুর সদরের আশিকাটি ইউনিয়নের পাইকাস্তা এলাকার বাদশা গাজী (৭০), লক্ষ্মীপুরের রায়পুর উপজেলার চরপাড়া এলাকার রোকেয়া বেগম (৬৬) ও চাঁদপুর সদরে সকদি পাঁচগাঁও এলাকার আবুল কাশেম (৭৫)।
এদিকে চাঁদপুরে আরও ৪৪৯ জন করোনা আক্রান্ত হয়েছেন। ৪ আগস্ট বুধবার ৯৪৩ জনের নমুনা পরীক্ষা করে ৪৪৯ জনের রিপোর্ট পজেটিভ আসে।
স্বাস্থ্য বিভাগ জানায়, বুধবার আক্রান্তদের মধ্যে চাঁদপুর সদর উপজেলায় ৯৮ জন, ফরিদগঞ্জে ১৩ জন, হাজীগঞ্জে ৩৩ জন, মতলব উত্তরে ৬২ জন, মতলব দক্ষিণ ৬৯, কচুয়ায় ১০৮ জন, হাইমচরে ৩৭ জন শাহরাস্তিতে ২৯ জন।
এ নিয়ে জেলায় করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ১১ হাজার ৪৪৮ জন। বর্তমানে জেলায় করোনা আক্রান্ত হয়ে মৃতের সংখ্যা ১৮২ জন। ৪ আগস্ট পর্যন্ত আক্রান্তদের মধ্যে সুস্থ হয়েছেন ৭ হাজার ৩৩৩ জন। এ তথ্য জানিয়েছেন সিভিল সার্জন ডা. মো. সাখাওয়াত উল্লাহ।
৪ আগস্ট পর্যন্ত জেলায় আক্রান্তদের মধ্যে সদর উপজেলায় ৪৮৫০ জন, হাইমচরে ৬১৩ জন, মতলব উত্তরে ৬৩৯ জন, মতলব দক্ষিণে ৯৯৩ জন, ফরিদগঞ্জে ১২৭৭ জন, হাজীগঞ্জে ১১৩৮ জন, কচুয়ায় ৫৫৫ জন, শাহরাস্তিতে ১৩৮৩ জন।
মৃত ১৮২ জনের মধ্যে সদর উপজেলায় ৬৯ জন, ফরিদগঞ্জে ২৮ জন, হাজীগঞ্জে ২৫ জন, শাহরাস্তিতে ২৩ জন, কচুয়ায় ৯ জন, মতলব উত্তরে ১৩ জন, মতলব দক্ষিণে ১১ জন, হাইমচরে ৪ জন।
জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ জানায়, এ পর্যন্ত জেলায় পরীক্ষা করা হয়েছে ৪৬ হাজার ৪৭৪ জনের। এর মধ্যে পজেটিভ ১১ হাজার ৪২৯ জন আর নেগেটিভ ৩৫ হাজার ৪৫ জনের রিপোর্ট। করোনা আক্রান্তদের মধ্যে বর্তমানে চিকিৎসাধীন রয়েছেন ৩৯৩৩ জন। এদের মধ্যে ১৩২ জন হাসপাতালের আইসোলেশনে এবং ৩৮০১ জন হোম আইসোলেশনে রয়েছেন।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *