চাঁদপুরে ৯০ ব্যক্তি-সংগঠনের মাঝে ১৮ লাখ ৪৮ হাজার টাকার চেক বিতরণ

নিজস্ব প্রতিবেদক :
বাংলাদেশ জাতীয় সমাজকল্যাণ পরিষদ হতে ২০২০-২০২১ অর্থবছরে চাঁদপুর জেলার নিবন্ধিত ৬৩টি সাধারণ স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন ও ২৭ জন মেধাবী শিক্ষার্থীদের মাঝে প্রধানমন্ত্রীর উপহার হিসেবে প্রাপ্ত অনুদানের ১৮ লাখ ৪৮ হাজার টাকার চেক বিতরণ অনুষ্ঠান সম্পন্ন হয়েছে।

মঙ্গলবার (৩১ আগস্ট) দুপুরে চাঁদপুর জেলা প্রশাসক সম্মেলন কক্ষে এ চেক বিতরণের আয়োজন করা হয়।

চেক বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন চাঁদপুরের জেলা প্রশাসক অঞ্জনা খান মজলিশ। তিনি তাঁর বক্তব্যে বলেন, আমরা প্রত্যেকটি উপজেলাকে টাচ করেছি। আজকে যেসব সংগঠনগুলোকে দিলাম তাদেরকে আমরা ডেকে এনেছি চেকগুলো আপনাদের হাতে দেয়ার জন্যে, এটা মূলত স্বচ্ছতা ও জবাবদিহিতা নিশ্চিত করার জন্যে। কারা চেকগুলো পেল এবং কি কারণে পেল। এগুলো আপনাদের আবেদন করার প্রেক্ষিতে যাচাই-বাছাই শেষে আজকে আপনাদের হাতে তুলে দেয়া হলো। আসলে আমরা সবসময় নিশ্চিত করতে চাই তা হলো সরকার যে ব্যয়গুলো করছে তা সাধারণ মানুষ যেন জানতে পারে। আমাদের বাজেটের প্রায় শতকরা ৪০ ভাগ বিভিন্ন ভাতা বা অনুদানের মধ্যে চলে যাচ্ছে। আমরা যখন ভাতা বা অনদান বিতরণ করি, এই ভাতা যারা পায় তাদের হাতে সরাসরি দিতে পারি। তখন সাধারণ মানুষ, সুশীল সমাজ ও আমাদের সাংবাদিকরাও জানতে পারবে। আর সাংবাদিকরা জানলে তারা তাদের লেখনির মাঝে আপামর জনসাধারণের মাঝে পৌঁছে দিতে পারে।

জেলা প্রশাসক বলেন, আজকে আমরা বিভিন্ন নিবন্ধিত সংগঠনের মাঝে চেক বিতরণ করলাম। এই অনুদান দেয়ার কারণ হলো যেন এই সংগঠনগুলোকে বাঁচিয়ে রাখা। এই সংগঠনগুলোকে যদি আমরা বাঁচিয়ে রাখতে পারি তাহলে এইসব সংগঠনগুলোর সাথে জড়িত শিশু কিশোর, বয়স্ক, তরুন সমাজেরা একটি কাজের মধ্যে রেগে থাকবে। যারা স্বেচ্ছায় মানুষের সেবা দিতে চায়, কাতের মনমানসিকতা উন্নত হবে। মানুষের উপকার করার একটি মনোবৃত্তি তৈরী হয়। তখন তারা মাদক,কিশোর গ্যাংসহ অন্যন্য সামাজিক অবক্ষয় থেকে সরে আসবে। তখন তাদের মন-মানসিকতা মানুষের জন্যে কাজ করার একটি ইচ্ছা তৈরী হবে। মানুষের মুখে হাসি ফুটানো যে একটা তৃপ্তি, তখন তারা শিখতে পারে। কাজেই আমরা চাই এইসব সংগঠনগুলো আরো বেশি ব্যপ্তি লাভ করুক এবং ভালোভাবে কাজ করুক।

তিনি স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনদের উদ্দেশ্য করে বলেন, আপনারা যারা মানুষের সেবা করছেন আপনারা নতুন প্রজন্মকে আপনাদের কার্যক্রমগুলো করার আগ্রহ করে গড়ে তুলবেন।

জেলা সমাজসেবা কার্যালয়ের উপপরিচালক রজত শুভ্র সরকার’র সঞ্চালনায় বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন, জেলা পুলিশ সুপার মোঃ মিলন মাহমুদ বিপিএম (বার), চাঁদপুর প্রেসক্লাবের সভাপতি ইকবাল হোসেন পাটওয়ারী, স্বাধীনতক পদক প্রাপ্ত নারী মুক্তিযোদ্ধা ডা. সৈয়দা বদরুন্নাহার চৌধুরী প্রমূখ।

এসময় উপস্থিত ছিলেন জেলা প্রশাসনের এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট ইমরান মাহমুদ ডালিম, জেলা সমাজসেবা কার্যালয়ের সহকারি পরিচালক মিয়া ফিরোজ আহমেদ, সমাজসেবা অফিসার (রেজিঃ) মো. মনিরুল ইসলাম প্রমূখ।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *