চাঁদপুর ভূমি অফিসে সেবা নিতে এসে কেউ যেন হয়রানির শিকার না হয় : এসি ল্যান্ড

নিজস্ব প্রতিবেদক :
চাই স্বচ্ছতা, জবাবদিহিতা, সেবার সহজীকরণ ও জনভোগান্তি হ্রাস-এ প্রতিপাদ্য নিয়ে সচেতন নাগরিক কমিটি (সনাক) চাঁদপুরের সাথে চাঁদপুর সদর উপজেলা ভূমি কর্তৃপক্ষের “করোনাকালীন সংকট মোকাবেলায় ভূমিখাতে কার্যক্রম : চ্যালেঞ্জ ও করণীয়” শীর্ষক ভার্চুয়াল মতবিনিময় সভা গতকাল ১৪ সেপ্টেম্বর ২০২১ অনুষ্ঠিত হয়। সনাকের সহ-সভাপতি ডাঃ পীযূষ কান্তি বড়ুয়ার সভাপতিত্বে সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন চাঁদপুর সদর উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) মুহাম্মদ হেলাল চৌধুরী।
প্রধান অতিথির বক্তব্যে চাঁদপুর সদর উপজেলার সহকারী কমিশনার (ভূমি) মুহাম্মদ হেলাল চৌধুরী বলেন, সনাক-টিআইবি স্বচ্ছতা, জবাবদিহিতা ও দুর্নীতি প্রতিরোধ নিয়ে কাজ করে। সনাক-টিআইবি’র সকল কাজে আমার পক্ষ থেকে সর্বাত্মক সহযোগিতা থাকবে। চাঁদপুর সদর উপজেলা ভূমি অফিসে সেবা নিতে এসে যদি কেউ হয়রাণীর শিকার হয় বা কোন অনিয়ম দেখতে পান তাহলে সরাসরি আমাকে জানাবেন। এ বিষয়টি আমি সার্বিকভাবে খেয়াল রাখবো। তিনি আরও বলেন, ভূমি উন্নয়ন কর অনলাইন করার জন্য সরকার এক যুগান্তকারী পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে। এ বিষয়টি সম্পর্কে আরও বেশি সচেতনতা বাড়াতে ও জনগণকে উদ্বুদ্ধ করার জন্য তিনি সনাকের সহযোগিতা কামনা করেন। অনলাইন করতে হলে প্রত্যেক জমির মালিককে এনআইডি, খতিয়ান ও মোবাইল নম্বর অবশ্যই সাথে আনতে হবে। ইউনিয়ন উপ-সহকারী ভূমি কর্মকর্তার কার্যালয়ে গেলে ভূমি রেজিষ্ট্রেশন করা যাবে। তিনি আরও বলেন, খাজনাও এখন অনলাইনে হচ্ছে। আপনারা কেউ দালালের খপ্পরে পরে প্রতারিত হবেন না। তিনি আরও বলেন, সনাকের যেকোন কর্মকান্ডে আমাকে পাশে পাবেন। আপনাদের পরামর্শগুলো আমি গ্রহণ করবো। এমন একটি সভা আয়োজনের জন্য তিনি সনাক ও টিআইবিকে ধন্যবাদ জানান।
স্বাগত বক্তব্যে সনাকের সাবেক সভাপতি কাজী শাহাদাত বলেন, টিআইবি’র অনুপ্রেরণায় সচেতন নাগরিক কমিটি (সনাক) বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের স্বচ্ছতা, জবাবদিহিতা ও সুশাসন প্রতিষ্ঠা এবং প্রতিষ্ঠানগুলোর সমস্যাসমমূহ চিহ্নিত করে পারস্পরিক আলোচনার মাধ্যমে সমাধানের উদ্যোগ গ্রহণ করে থাকে। সীমাবদ্ধতার উর্ধ্বে থেকে কিভাবে আমরা সেবার মান আরও বৃদ্ধি করতে পারি সে বিষয়গুলো নিয়ে আলোচনা করাই আমাদের আজকের সভার মূল উদ্দেশ্য। তিনি আরও বলেন, আমি মনে করি চাঁদপুর সদর উপজেলা ভূমি অফিস নিয়ে সনাক কাজ করার ফলে ভূমি অফিসের সেবার মানের অনেক পরিবর্তন এসেছে। আমরা ইতিপূর্বে চাঁদপুর সদর উপজেলা ভূমি অফিস ও ইউনিয়ন ভূমি অফিসের স্বচ্ছতা, জবাবদিহিতা ও সুশাসন প্রতিষ্ঠায় সচেতনতামূলক বহু কার্যক্রম করেছি। আশা করছি আগামী দিনগুলোতেও এধারা অব্যাহত থাকবে। আজকের এই সভার মাধ্যমে এবং ভূমি বিষয়ে বিভিন্ন আলোচনার ফলে ভূমি সেবাখাতে স্বচ্ছতা ও জবাবদিহিতা বৃদ্ধিতে অগ্রণী ভূমিকা পালন করবে।
সভাপতির বক্তব্যে সনাকের সহ-সভাপতি ডাঃ পীযূষ কান্তি বড়ুয়া বলেন, ভূমি সেবাখাতে অটোমেশন পদ্ধতি চালু করায় ভূমি মন্ত্রণালয়সহ ভূমি কর্তৃপক্ষকে সনাকের পক্ষ থেকে ধন্যবাদ জানাই। তিনি কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি আকর্ষণ করে বলেন, ভূমি অফিসগুলোতে তথ্য অধিকার আইন প্রয়োগ হয় কিনা অর্থাৎ সাধারণ জনগণ আবেদনের মাধ্যমে তথ্য চায় কিনা সেদিকেও খেয়াল রাখতে হবে। ভূমি নিয়ে মানুষের মধ্যে এখনো অনেক জটিলতা রয়েছে। তিনি ভূমিসেবা সাধারণ জনগণের জন্য আরও কিভাবে সহজ করা যায় সেদিকে খেয়াল রাখার আহ্বান জানান। তিনি মতবিনিময় সভায় উপস্থিত হওয়ার জন্য সবাইকে ধন্যবাদ জানান।
টিআইবি-সনাক সম্পর্কিত আলোচনা, ভূমি কর্তৃপক্ষের সাথে সনাকের সহযোগিতামূলক কার্যক্রম, করোনাকালীন সংকট মোকাবেলায় ভূমিখাতে কার্যক্রম : চ্যালেঞ্জ ও করণীয় শীর্ষক মুক্ত আলোচনা সহ অনুষ্ঠানের সঞ্চালনা করেন সনাক-এর সহ-সভাপতি অধ্যপিকা সবিতা বিশ^াস ও টিআাইবি’র এরিয়া কো-অর্ডিনেটর মোঃ মাসুদ রানা। মুক্ত আলোচনায় অংশগ্রহণ করেন সনাকের সাবেক সভাপতি অধ্যক্ষ মোঃ মোশারেফ হোসেন, ইউনিয়ন উপ-সহকারী ভূমি কর্মকর্তা আব্দুল লতিফ গাজী, মোঃ দিদার আহমেদ ও ইয়েস গ্রুপের দলনেতা অনয় দেবনাথ। মতবিনিময় সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন, ইউনিয়ন সহকারী ভূমি কর্মকর্তাবৃন্দ, সনাক চাঁদপুরের সদস্যবৃন্দ, স্বজন, ইয়েস ও ইয়েস ফ্রেন্ডস্ গ্রুপের দলনেতা ও সহ-দলনেতাবৃন্দ এবং টিআইবি’র কর্মীবৃন্দ।

 

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *