বেগম খালেদা জিয়া জীবনমৃত্যুর সন্ধিক্ষণে : হাবীব-উন-নবী খান সোহেল

চাঁদপুর জেলা বিএনপি কার্যালয়ে আলোচনা সভা
অভিজিত রায় :
কেন্দ্রীয় বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব হাবীব-উন-নবী খান সোহেল বলেছেন, দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া আজ জীবনমৃত্যুর সন্ধিক্ষণে। স্বৈরাচারী, ঝুলুম সরকার চাচ্ছেন না, তিনি বিদেশে গিয়ে উন্নত চিকিৎসা করান। তিনি তিলে তিলে মৃত্যুর দিকে চলে যাচ্ছেন। আমরা দাবী জানাচ্ছি তাকে বিদেশে সু-চিকিৎসা করানো হউক। যে কোন সময় আমাদের রাজপথে নামতে হবে। ভোটের অধিকার ও গণতন্ত্র রক্ষায় সকলকে প্রস্তুত থাকতে হবে। কেউ বেইমানীর রক্ত নিয়ে রাজপথে নামবেন না।
৪ ডিসেম্বর (শনিবার) সকালে চাঁদপুর জেলা বিএনপির কার্যালয়ে নেতৃবৃন্দের উদ্দেশ্যে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন।
ভোট ও নির্বাচন নিয়ে তিনি বলেন, বর্তমান সরকার জনগণের ভোটের অধিকার কেড়ে নিয়েছে। ভোটের অধিকার কেড়ে নিতে গিয়ে তারা আজকে হিজড়ার কাছে বিপুল ভোটে পরাজিত হয়। আমি তৃতীয় লীঙ্গের মানুষকে অসন্মান করার জন্য কথাটা বলিনি। যদি এই দেশে কলাগাছ নির্বাচনে দাঁড়ানোর সুযোগ পেত, তাহলে তারা সেখানেও হেরে যেত। আগে স্লোগান ছিল আমার ভোট আমি দিব, যাকে খুশি তাকে দেব। আর এই সরকারের শ্লোগান হলো আমার ভোট আমি দেব, যত খুশি তত দেব। তারেক রহমানের নেতৃত্বে জনগনের ভোটাধিকার ফিরিয়ে আনা হবে।
হাবীব-উন-নবী খান সোহেল আরও বলেন, এ দেশের গ্রামীন সড়কের মাইলকে মাইল দেশনেত্রী খালেদা জিয়া তৈরি করেছেন। নারী শিক্ষার জন্য বেগম রোকেয়ার পাশাপাশি দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার নাম চিরদিন থাকবে। কেউ তা মুছতে পারবে না। দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া মানে বাংলাদেশ। বাংলাদেশ মানেই বেগম খালেদা জিয়া।
চাঁদপুর জেলা বিএনপির আহ্বায়ক শেখ ফরিদ আহম্মেদ মানিক এর সভাপতিত্বে ও জেলা বিএনপির যুগ্ম আহ্বায়ক অ্যাড. সেলিম উল্ল্যাহ সেলিম এর সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখেন চাঁদপুর জেলা বিএনপির যুগ্ম আহ্বায়ক দেওয়ান সফিকুজ্জামান, সদর থানা বিএনপির সভাপতি অ্যাড. জাহাঙ্গীর হোসেন খান।
এ সময় চাঁদপুর জেলা বিএনপির যুগ্ম আহ্বায়ক মাহবুব আনোয়ার বাবলু, মুনির চৌধুরী, সেলিমুস সালাম, খলিলুর রহমান গাজী, অ্যাড. হারুনুর রশিদসহ বিভিন্ন পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.