সাবেক পর্ণ তারকা সানি লিওনিকে বাংলাদেশে আনতে পারছে না সেলিম খানের প্রতিষ্ঠান

ছবি : সাবেক পর্ণস্টার সানি লিওনি। পাশে, প্রযোজক সেলিম খান।

চলচ্চিত্রে অংশগ্রহণে দেশে প্রবেশের আবেদন বাতিল করেছে সরকার

নিজস্ব প্রতিবেদক :
সাবেক পর্ন তারকা ও বলিউড অভিনেত্রী সানি লিওনকে বাংলাদেশে ঢোকার অনুমতি বাতিল করেছে সরকার। সেলিম খানের প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান মেসার্স চেয়ারম্যান ফিল্ম সিন্ডিকেটের ব্যানারে নির্মাণাধীন ‘সোলজার’ চলচ্চিত্রে অভিনয়ের জন্য ওয়ার্ক পারমিট পেয়েছিলেন ১১ বিদেশি শিল্পী। এদের মধ্যে বলিউড অভিনেত্রী সানি লিওনের (মন্ত্রণালয়ের চিঠিতে আমেরিকান অভিনেত্রী করনজিৎ কৌর ওয়েবার বলা হয়েছে) ওয়ার্ক পারমিট বাতিল করেছে তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয়।
বুধবার (৯ মার্চ) মন্ত্রণালয়ের চলচ্চিত্র-১ শাখা থেকে মেসার্স চেয়ারম্যান ফিল্ম সিন্ডিকেটের প্রযোজক মো. সেলিম খানকে পাঠানো এক চিঠিতে এ তথ্য জানানো হয়।
এতে বলা হয়, মেসার্স চেয়ারম্যান ফিল্ম সিন্ডিকেটের ব্যানারে নির্মাণাধীন ‘সোলজার’ চলচ্চিত্রে অভিনয়ের জন্য ১০ জন ভারতীয় অভিনয় শিল্পী ও কলাকুশলী এবং আমেরিকান অভিনেত্রী করনজিৎ কৌর ওয়েবারসহ মোট ১১ জনের অনুকূলে বাংলাদেশে আগমনের অনুমতি/ওয়ার্ক পারমিট দেওয়া হয়। অনিবার্য কারণে আমেরিকান অভিনেত্রী করনজিৎ কৌর ওয়েবারের ওয়ার্ক পারমিট বাতিল করা হলো।
জানা গেছে, অনুমতির জন্য ব্যবহার করা হয়েছে সানি লিওনের প্রকৃত নাম করনজিৎ কৌর ওয়েবার। তার নাগরিকত্ব উল্লেখ করা হয়েছে আমেরিকান। আবেদনে দেওয়া হয়েছিল তার মার্কিন পাসপোর্ট নম্বর। ইন্দো-কানাডিয়ান সাবেক এ পর্ণ তারকা সানি লিওনের পুরো নাম করনজিৎ কৌর ওয়েবার। ২০১০ সালে টপ পর্ন স্টারের তালিকায় উঠে আসা সানি লিওন ছিল গুগলের সেরা তালিকায়। যাকে নিয়ে সবচাইতে বেশি সার্চ হয়েছে গুগলে। জেনেসিস ম্যাগাজিনের ১০০ জন পর্ন স্টারের তালিকায় সানি লিওন সেরা ১৩ নম্বরে জায়গা করে নিয়েছিল।
সানি লিওনকে বাংলাদেশে ধর্মীয় সংগঠনগুলোর মধ্যে তাকে নিয়ে অস্বস্তি রয়েছে। ধারণা করা হচ্ছে, তাকে ঘিরে কোনো ধরনের অসন্তোষ বা প্রতিক্রিয়া হতে পারে, এই আশঙ্কা থেকেই এমন সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। এর আগে ২০১৫ সালে বাংলাদেশে আসার কথা ছিল সানি লিওনের। সেবার ইসলামিক সংগঠনগুলোর বাধার মুখে অনুমতি দেওয়া হয়নি তাকে।
‘সোলজার’ চলচ্চিত্রের অন্য বিদেশি শিল্পীরা হলেন- কৌশানী মুখার্জি, রাহুল দেব কৌশাল, রাজেশ কুমার শর্মা, রজতাভ দত্ত, বরজ কল, শান্তি লাল মুখার্জি, খরাজ মুখার্জি, বিক্রম আনন্দ সাবেরাওয়াল, দেবাশীষ মুখার্জি ও সুপ্রিম দত্ত।
উল্লেখ্য, চাঁদপুর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে জমি অধিগ্রহণ নিয়েও হাইকোর্টে জাল তথ্য দেন ইউপি চেয়ারম্যান সেলিম খান। ২ মার্চ এ সংক্রান্ত রিট মামলার শুনানিতে হাইকোর্টকে এসব তথ্য জানান এটর্নি জেনারেল।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.