চাঁদপুরে লকডাউনের বিধি-নিষেধ জারি

নিজস্ব প্রতিবেদক :
২৮ জুন সোমবার সকাল ছয়টা থেকে ১ জুলাই সকাল ছয়টা পর্যন্ত সীমিত পরিসরে চাঁদপুরসহ সারাদেশে লকডাউনের ঘোষণা দিয়ে প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়েছে। এ লকডাউনে সকল শপিং মল, মার্কেট, পর্যটন কেন্দ্র, রিসোর্ট, কমিউনিটি সেন্টার ও বিনোদন কেন্দ্র বন্ধ থাকবে। খাবারের দোকান, হোটেল-রেস্তোরাঁ সকাল ৮টা থেকে রাত ৮টা পর্যন্ত খাবার বিক্রয় করতে পারবে। সরকারি-বেসরকারি অফিস/প্রতিষ্ঠানসমূহে শুধুমাত্র প্রয়োজনীয় সংখ্যক কর্মকর্তা/কর্মচারীর উপস্থিতি নিশ্চিত করতে নিজ নিজ অফিসের ব্যবস্থাপনায় তাদের আনা-নেওয়া করতে হবে এবং জনসাধারণকে মাস্ক পরার জন্য আরও প্রচার-প্রচারণা চালাতে হবে। প্রয়োজনীয় ক্ষেত্রে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে। গতকাল রবিবার (২৭ জুন) জারিকৃত প্রজ্ঞাপনে স্বাক্ষর করেন মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের উপ-সচিব রেজাউল ইসলাম।
এদিকে লকডাউন মেনে চলার জন্য রোববার রাতে চাঁদপুর শহরের বিভিন্ন স্থানে মাইকিং করেছে জেলা প্রশাসন ও পুলিশ বিভাগ। গণবিজ্ঞপ্তি জারি করেছেন জেলা ম্যাজিস্ট্রেট ও জেলা প্রশাসক অঞ্জনা খান মজলিস।
গণবিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, করোনাভাইরাসজনিত রোগ কোভিড-১৯ এর বিস্তার রোধকল্পে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের ইতোপূর্বে জারিকৃত স্মারকের অনুবৃত্তিক্রমে আগামী ২৮ জুন ২০২১ সকাল ৬.০০ হতে ০১ জুলাই ২০২১ সকাল ৬:০০ পর্যন্ত চাঁদপুর জেলায় নিম্নোক্ত বিধি-নিষেধ আরোপ করা হলো :
(ক) পণ্যবাহী যানবাহন ও রিক্সা ব্যতীত সকল গণপরিবহন বন্ধ থাকবে। আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী কর্তৃক নিয়মিত টহলের মাধ্যমে বিষয়টি নিশ্চিত করা হবে।
(খ) সকল শপিংমল, মার্কেট, পর্যটন কেন্দ্র, রিসোর্ট, কমিউনিটি সেন্টার ও বিনোদন কেন্দ্র বন্ধ থাকবে।
(গ) খাবারের দোকান ও হোটেল-রেস্তোরাঁয় সকাল ০৮:০০ টা থেকে রাত ০৮:০০ টা পর্যন্ত খাবার বিক্রয় (শুধুমাত্র Online Take way) করতে পারবে।
(ঘ) সরকারি-বেসরকারি অফিস/প্রতিষ্ঠানসমূহে শুধুমাত্র প্রয়োজনীয় সংখ্যক কর্মকর্তা/কর্মচারীর উপস্থিতি নিশ্চিত করতে নিজ নিজ অফিসের ব্যবস্থাপনায় তাদের আনা-নেয়া করতে হবে ; এবং
(ঙ) সবসময় মাস্ক পরিধান করতে হবে। অন্যথায় আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।
সকল সম্মানিত নাগরিকগণকে সরকারি আদেশ যথাযথভাবে প্রতিপালনের অনুরোধ করা হলো। অন্যথায় আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।
চাঁদপুর লকডাউন সম্পর্কে জেলা প্রশাসক অঞ্জনা খান মজলিশ বলেন, করোনা সংক্রমণরোধে সরকারের এ সিদ্ধান্ত বাস্তবায়নে আমরা সবসময়ই সচেষ্ট আছি। তিনি বলেন, সরকারের নির্দেশনা অনুযায়ী লকডাউনের মেনে চলতে রাাতেই মাইকিং করা হয়েছে। সোমবার সকাল থেকে আমাদের মোবাইল কোর্ট মাঠে নামবে। আর দোকান মালিক সমিতি এবং বাস মালিক সমিতির নেতৃবৃন্দকে ফোন করে বলা হয়েছে দোকান এবং বাস চলাচল বন্ধ রাখার জন্য।
তিনি বলেন, বাইরে বের হলে সবাইকে অবশ্যই মাস্ক পরতে হবে। অন্যথায় আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *