বঙ্গবন্ধুর চেতনা নতুন প্রজন্মের কাছে ছড়িয়ে দিতে হবে : জেলা প্রশাসক

অভিজিত রায় ::
চাঁদপুর জেলা প্রশাসনের আয়োজনে ঐতিহাসিক ৭ই মার্চ উপলক্ষে আলোচনা সভা, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠান সম্পন্ন হয়েছে।
সোমবার (৭ মার্চ) সন্ধ্যায় চাঁদপুর জেলা শিল্পকলা একাডেমী মিলনায়তনে এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।
আলোচনা সভায় সভাপতির বক্তব্য রাখেন চাঁদপুরের জেলা প্রশাসক অঞ্জনা খান মজলিশ। তিনি সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙালি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এর প্রতি গভীর শ্রদ্ধার সাথে স্মরণ করে বলেন, জাতির পিতা সেদিন অনবদ্য,অলেখিত কবিতা রচনা করেছিলেন। কতবার যে এ ভাষণটি শুনা হয়েছে তার হিসাব নেই, সারা বিশ্বে যত ভাষণ রয়েছে সেগুলোও এতবার শ্রুত হয়নি। বঙ্গবন্ধুর ভাষণটিতে আমাদের ইতিহাস ও বঞ্চনার কাহিনী আছে, আছে স্বাধীনতার ডাক। খুবই ডিপ্লোমেটিকভাবে স্বাধীনতার ঘোষণা দিয়েছিলেন বঙ্গবন্ধু। তিনি বলেন, সেদিন জাতির পিতার উপর চাপ ছিলো স্বাধীনতার ঘোষণা নিয়ে। এমনভাবে তিনি ঘোষণা করলেন যার জন্যে বাঙালি জাতির উপর কোন আঁচ আসেনি। পৃথিবীর সেরা সেরা ভাষণগুলো বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ভাষণের কাছে ম্লান হয়ে গেছে।
জেলা প্রশাসক আরো বলেন, বঙ্গবন্ধুর চেতনার বাস্তবায়ন ঘটাতে হবে। বঙ্গবন্ধুর চেতনাকে নতুন প্রজন্মের কাছে ছড়িয়ে দিতে হবে। আমরা দেশকে ভালোবাসি শুধু মুখে নয়, কাজে পরিচয় করে দিতে হবে। যার যার অবস্থান থেকে সঠিকভাবে কাজ করলে বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলার গড়ে উঠবে।
বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন চাঁদপুর জেলা পুলিশ সুপার মোঃ মিলন মাহমুদ বিপিএম (বার), জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আলহাজ্ব নাছির উদ্দিন আহমেদ, সাধারণ সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা আবু নঈম পাটওয়ারী দুলাল, চাঁদপুর পৌরসভার মেয়র অ্যাড. জিল্লুর রহমান জুয়েল, স্বাধীনতা পদকপ্রাপ্ত নারী মুক্তিযোদ্ধা ডা. সৈয়দা বদরুন্নাহার চৌধুরী, পুরাণবাজার ডিগ্রি কলেজের অধ্যক্ষ রতন কুমার মজুমদার, প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি ইকবাল হোসেন পাটওয়ারী প্রমুখ।
সাংবাদিক এমআর ইসলাম বাবু’র সঞ্চালনায় সম্মানিত অতিথির বক্তব্য রাখেন, সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের সভাপতি তপন সরকার, বিশিষ্ট ছড়াকার ডা. পিযুষ কান্তি বড়ুয়া।


এ সময় উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) ও স্থানীয় সরকারের উপ-পরিচালক দাউদ হোসেন চৌধুরী, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) ইমতিয়াজ হোসেন, অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট (এডিএম) মোহাম্মদ নাসির উদ্দিন সরোয়ার, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা ও আইসিটি) মোছামৎ রাশেদা আক্তার, চাঁদপুর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মুহাম্মদ আব্দুর রশিদ, শিশু বিষয়ক কর্মকর্তা মো. কাউছার আহমেদসহ চাঁদপুর জেলা প্রশাসন, পুলিশ প্রশাসন, রাজনৈতিক ব্যক্তিবর্গ, সাংবাদিকবৃন্দ।
আলোচনা সভা শেষে চাঁদপুর জেলা শিল্পকলা একাডেমীর আয়োজনে জেলার বিভিন্ন সাংস্কৃতিক সংগঠনের সমন্বয়ে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান পরিবেশিত হয়।
এরপরে ঐতিহাসিক ৭ই মার্চ উপলক্ষে আয়োজিত বিভিন্ন প্রতিযোগিতার বিজয়ীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ করেন অনুষ্ঠানের সভাপতিসহ আমন্ত্রিত অতিথিবৃন্দ

 

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.